রিহ্যাব মেলায় এবার বিক্রি হয়েছে কবর

এবারের আবাসন মেলায় বসবাসের জন্য ফ্ল্যাট ও প্লটের যেমন বেশ বেচাকেনা হয়েছে  সেই সাথে অনেকেই খুঁজে নিয়েছেন সাড়ে তিন হাতের শেষ ঠিকানাও।

এবারই মেলায় প্রথমবারের মতো একটি প্রতিষ্ঠান আট হাজার কবরের জায়গা বিক্রির জন্য প্রকল্প প্রদর্শন করে। এমআইএস হোল্ডিংসের স্টলে এই কবরের স্থান বিক্রি হয়েছে। মেলা থেকে প্রতিষ্ঠানটি দুই শতাধিক কবরের জায়গা বিক্রি করেছে।

গত শনিবার রাজধানীর আগারগাঁওয়ের পাঁচ দিনের রিহ্যাব মেলা শেষ হয়। এবারের রিহ্যাব মেলায় এমআইএস হোল্ডিংসের স্টলে ক্রেতার ভিড় ছিল অনেক। অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের স্টলে সব বয়সের মানুষ ফ্ল্যাট ও প্লট খুঁজলেও এই স্টলে ছিল বেশি বয়সের মানুষের ভিড়। মেলায় কবরের জায়গা বুকিং দিয়েছেন দুইশ’র বেশি মানুষ। এছাড়া কেনাকাটার জন্য আলোচনা করেছে কয়েক হাজার ক্রেতা।

‘পূর্বাচল রাওজাতুল জান্নাত’ নামে ৮০ হাজার কবরের জায়গার এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে এমআইএস হোল্ডিংস। শুরুতে ২০০ বিঘা জায়গার ওপর আট হাজার কবরের স্থান করা হচ্ছে। এরই মধ্যে দুই হাজার কবর করার মতো জায়গা প্রস্তুত করা হয়েছে। সেখান থেকে মেলায় দুই শতাধিক বিক্রি হয়েছে।

প্রতিটি কবর সাড়ে তিন হাত দৈর্ঘ্য ও দেড় হাত প্রস্থের হলেও আশপাশের জায়গাসহ ২৪ দশমিক ৫ বর্গফুটের কবরের জায়গা বিক্রি করছে প্রতিষ্ঠানটি। সাত ফুট দৈর্ঘ্য ও ৩.৫ ফুট প্রস্থের (২৪.৫ বর্গফুট) এসব জমির মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে তিন লাখ ৩০ হাজার টাকা। আর এককালীন সার্ভিস চার্জ ১৫ হাজার টাকা। সব মিলিয়ে তিন লাখ ৪৫ হাজার টাকায় পাওয়া যাচ্ছে একটি কবরের জায়গা।

print

LEAVE A REPLY