চট্টগ্রামকে ৮ উইকেটে হারিয়েছে রাজশাহী

বঙ্গবন্ধু বিপিএলে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সকে ৮ উইকেটে হারিয়েছে রাজশাহী রয়্যালস। প্রথমে ব্যাট করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৫৫ রান করে চট্টগ্রাম। জবাবে ১৭.৪ ওভারে ২ উইকেট হারিয়েছে জয়ের লক্ষে পৌঁছে যায় রাজশাহী।

শনিবার মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয় রাজশাহী রয়্যালস। সপ্তম ওভারে চট্টগ্রামের উদ্বোধনী জুটি ভাঙ্গেন রাজশাহীর স্পিনার পাকিস্তানের শোয়েব মালিক। ২টি চার ও ১টি ছক্কায় ২৩ বলে ২৩ রান করা জুনায়েদ সিদ্দিককে বিদায় দেন মালিক। নিজের দ্বিতীয় ম্যাচেও বড় ইনিংস খেলতে পারেননি ক্রিস গেইল। ১টি চার ও ২টি ছক্কায় ২১ বলে ২৩ রান করেন গেইল। তাকে শিকার করেন আফিফ। ভালো শুরুর ইঙ্গিত দিয়ে থামেন ইনফর্ম ইমরুল কায়েস। ১৮ বলে ৩টি চারে ১৯ রান করেন ইমরুল।

এ অবস্থায় উইকেটে গিয়েই মারমুখী হয়ে উঠেন উইকেটরক্ষক নুরুল হাসান। দলের রানের চাকা দ্রুত ঘুড়াতে থাকেন তিনি। ১৭ বলে ৪টি চার ও ১টি ছক্কায় ৩০ রান করেন নুরুল। তারপরও দলের স্কোর তেমনটা বাড়েনি। নুরুল যখন ফিরেন, তখন দলের স্কোর ১৩১ রান। ইনিংসের মাত্র ৯ বল বাকী ছিল। শেষ ৯ বলে ব্যাট হাতে ঝড় তুলেছেন মাহমুদুল্লাহ ও জিয়াউর রহমান। যোগ করেন অবিচ্ছিন্ন ২৪ রান। তাতেই ৫ উইকেটে ১৫৫ রানের লড়াকু সংগ্রহ পায় চট্টগ্রাম।

জয়ের জন্য ১৫৬ রানের লক্ষে খেলতে নেমে আফিফ হোসেন ও লিটন দাস ভাল সূচনা এনে দেন। দলীয় ৮৮ রানে নাসুম আহমেদের বলে বিদায় নেন আফিফ। আউট হওয়ার আগে ৩১ বলে ৩২ রান করেন তিনি। আফিফের বিদায়ের পর শোয়েব মালিকের সঙ্গে জুটি গড়েন লিটন। তারা দুজনে দলকে জয়ের কাছাকাছি নিয়ে যান। কিন্তু দলীয় ১৩৮ রানে বিদায় নেন লিটন। ৪২ বলে ৭৫ রান করে এলবিডব্লিউর ফাঁদে পড়েন তিনি। শোয়েব মালিক ৪৩ রানে অপরাজিত থেকে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন।

print

LEAVE A REPLY