হিজাব পরায় এবার এআর রহমানের মেয়েকে তসলিমার কটাক্ষ

ভারতের কিংবদন্তি সংগীত পরিচালক এআর রহমানের মেয়ে খাদিজা হিজাব পরায় তার সমালোচনা করেছেন বিতর্কিত লেখিকা তসলিমা নাসরিন।

খাদিজার হিজাব পরা একটি ছবি টুইটারে পোস্ট করে মঙ্গলবার তার সমালোচনা করেন এই বাংলাদেশি লেখিকা।

তিনি বলেন, এআর রহমানের গান আমি খুবই পছন্দ করি। কিন্তু যখন আমি দেখি তার প্রিয় কন্যাকে, তখন আমার দম বন্ধ হয়ে আসে।

হতাশা প্রকাশ করে তসলিমা বলেন, একটি সাংস্কৃতিক পরিবারের শিক্ষিত নারীদের কতটা সহজে মগজধোলাই করা যায়, তা সত্যিই বেদনাদায়ক।

গত বছর মেয়ে বোরকা পরায় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ব্যাপক ট্রলড হয়েছেন ভারতীয় সুরসম্রাট এআর রহমান।

ভারতীয় ব্যবসাসফল ছবি স্লামডগ মিলিয়নেয়ারের ১০ বছরপূর্তি উপলক্ষে মুম্বাইয়ের একটি বিশেষ অনুষ্ঠানে ছবিটির গানগুলোর সুরকার এআর রহমানকে মঞ্চে ডাকা হয়েছিল। সেখানে উপস্থিত ছিলেন তার কন্যা খাদিজাও।

এ সময় বাবার সম্পর্কে বলতে বোরকা পরে মঞ্চে ওঠেন খাদিজা। তার চোখ ছাড়া আর কিছুই দেখা যাচ্ছিল না তখন। এর পর খাদিজার এমন হিজাব ধারণ বিষয়ে ভারতের সামাজিকমাধ্যমে কটাক্ষ করা হয়।

নানারকম সমালোচনা আর আপত্তিকর কথায় মেতে ওঠেন জনতা। মেয়েকে রক্ষণশীল জীবনযাপনে বাধ্য করেছেন বলে এআর রহমানের বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলা হয় সেসব মন্তব্যে।

অনেকেই প্রশ্ন করেন– বাবা গান নিয়ে সারাবিশ্ব ঘুরে বেড়ান, অথচ মেয়ের এমন বেশভূষা কেন?

সেই সময় বোরকায় স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন খাদিজা এবং তিনি নিজের ইচ্ছাতেই ওই পোশাক পরছেন বলে জানানো হয় তার ফেসবুক পোস্ট থেকে। তবে তাতে দমেননি সমালোচকরা।

সেসব কটাক্ষ ও সমালোচনাকারীকে জবাব দিলেন অস্কারজয়ী এ সুরকার।

নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে একটি ছবি পোস্ট করে এআর রহমান লেখেন- ‘নীতা আম্বানিজির সঙ্গে আমার পরিবারের তিন অমূল্য রত্ন। #ফ্রিডমটুচুজ.’

ছবিতে দেখা গেছে, ভারতের শিল্পপতি মুকেশ আম্বানির স্ত্রী নীতা আম্বানির সঙ্গে হাসিমুখে দাঁড়িয়ে এআর রহমানের স্ত্রী সায়রা বানু এবং দুই কন্যা খাদিজা ও রহিমাকে।

ছবিতে তার স্ত্রীকে মাথায় ওড়না ও খাদিজাকে মঞ্চে ওঠা সেই একই হিজাবে দেখা গেলেও বড় মেয়ে রহিমাকে এমন পর্দা করতে দেখা যায়নি।

এই টুইট ও ছবিটি দিয়েই যে ঠাণ্ডা মাথায় সমালোচনাকারীদের জবাব এ সুরকার জানিয়ে দিলেন তা ইতিমধ্যে বুঝে গেছেন সবাই।

তার এমন জবাবের প্রশংসা এসেছে খোদ কটাক্ষকারীদের থেকে। অস্কারজয়ী ভারতীয় এ সুরসম্রাট #ফ্রিডমটুচুজ শব্দটি দিয়ে যা বুঝিয়েছেন, জোর করে চাপিয়ে দেয়া নয় খাদিজা নিজেই ধার্মিকতার এ বিষয়টি বেছে নিয়েছেন। স্বাধীনভাবে বেঁচে থাকার অধিকার রয়েছে সবার।

প্রসঙ্গত এক শৈব হিন্দু পরিবারে জন্ম এআর রহমানের। ইসলামধর্ম গ্রহণ করে এএস দিলীপ কুমার নাম থেকে তিনি নিজের নাম রাখেন আল্লাহ রাখা রহমান, সংক্ষেপে এআর রহমান। সুরের এক বিস্ময়কর জাদুকর বলা হয় তাকে।

I absolutely love A R Rahman’s music. But whenever i see his dear daughter, i feel suffocated. It is really depressing to learn that even educated women in a cultural family can get brainwashed very easily! pic.twitter.com/73WoX0Q0n9

— taslima nasreen (@taslimanasreen) February 11, 2020

print

LEAVE A REPLY