সানির আইনজীবীর দাবী ‘কাবিননামা ভুয়া’

জাতীয় ক্রিকেট দলের খেলোয়াড় আরাফাত সানির বিরুদ্ধে অস্তিত্বহীন ভুয়া কাবিননামা দিয়ে যৌতুক আইনের মামলা করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন সানির আইনজীবী জুয়েল আহেমেদ।

কথিত স্ত্রী নাসরিন সুলতানার দায়ের করা তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের মামলায় রিমান্ড শেষে মঙ্গলবার সানিকে আদালতে হাজির করা হয়।

এসময় সানির আইনজীবী তার জামিন আবেদন করেন।

জামিনের আবেদন শুনানিতে আইনজীবী জুয়েল আহেমেদ বলেন, সানির বিরুদ্ধে অস্তিত্বহীন ভুয়া কাবিননামা দিয়ে যৌতুক আইনের মামলা করা হয়েছে। আসামি জাতীয় ক্রিকেট দলের একজন খেলোয়াড়। তাকে জামিন দেয়া হোক।

বিচারক আসামিপক্ষে করা জামিন শুনানির আবেদন নথিভুক্ত রাখার পাশাপাশি সানিকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এসময় সানি অসুস্থ মর্মে কারাগারে তার চিকিৎসার ব্যবস্থা চেয়ে আদালতে আবেদন করেন তার আইনজীবী। বিচারক কারাবিধি মোতাবেক সানির সুচিকিৎসার ব্যবস্থা নিতে আদেশ দেন।

নাসরিন সুলতানার দায়ের করা তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের মামলায় গত ২২ ডিসেম্বর সকালে ক্রিকেটার আরাফাত সানিকে ঢাকার সাভার থানাধীন আমিন বাজার এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। পরে আদালতে তুলে সানির রিমান্ড আবেদন করে পুলিশ।

শুনানি শেষে সানির একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। মঙ্গলবার ফের তাকে আদালতে তোলা হয়। এসময় সানির আইনজীবী তার জামিন আবেদন করেন। আদালত জামিন নামঞ্জুরে করে সানিকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

পরের দিন সোমবার ঢাকা মহানগর হাকিম রায়হানুল ইসলামের আদালতে যৌতুক আইনে মামলা করেন নাসরিন সুলতানা।

আদালত নাসরিনের অভিযোগ আমলে নিয়ে সানির বিরুদ্ধে সমন জারি করেন। আগামী ৫ এপ্রিল তাকে আদালতে উপস্থিতির নির্দেশ দেন আদালত।

print

LEAVE A REPLY