সামরিক শক্তিতে শীর্ষ ১০ দেশ

দীর্ঘ ১২ বছর ধরে সামরিক খাত নিয়ে তথ্য সংগ্রহ এবং গবেষণা করছে ‘গ্লোবাল ফায়ারপাওয়ার’ নামের একটি প্রতিষ্ঠান। প্রতিবছরের মতো এবারও প্রতিষ্ঠানটি বিশ্বে সামরিক শক্তিধর দেশের তালিকা প্রকাশ করেছে।

১৩৬টি দেশের সশস্ত্রবাহিনীর শক্তি ও দক্ষতা ছাড়াও দেশগুলোর জনসংখ্যা, প্রাকৃতিক সম্পদ ও ভৌগোলিক গুরুত্বের ভিত্তিতে তালিকাটি তৈরি করা হয়েছে। সম্প্রতি প্রকাশিত ওই তালিকার সেরা ২৫টি দেশের মধ্যে ১১টিই এশিয়ার।

এছাড়া উত্তর আমেরিকার দুটি, ইউরোপের আটটি, আফ্রিকার দুটি ও দক্ষিণ আমেরিকার একটি দেশ রয়েছে। গ্লোবাল ফায়ার পাওয়ার ডটকমের তালিকার সামরিক শক্তিতে শীর্ষ ১০ সশস্ত্র বাহিনীর তথ্য এখানে তুলে ধরা হলো:

যুক্তরাষ্ট্র: বিশ্বের শক্তিশালী সশস্ত্র বাহিনীর তালিকার শীর্ষে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। ৩২ কোটি ৬৬ লাখ জনসংখ্যার বিপরীতে দেশটিতে ২০ লাখ ৮৩ হাজারেরও বেশি সেনা সদস্য রয়েছে। এর মধ্যে সক্রিয় অবস্থায় রয়েছে ১২ লাখ ৮১ হাজার ৯০০ জন। আর রিজার্ভে আছে ৮ লাখ ১ হাজারের বেশি সেনা।

রাশিয়া: যুক্তরাষ্ট্রের পরের অবস্থানটিতেই আছে তাদের সবচেয়ে বড় প্রতিদ্বন্দ্বী রাশিয়া। ১৪ কোটি ২২ লাখ জনসংখ্যার বিপরীতে রাশিয়ায় সেনা সদস্যের সংখ্যা ৩৫ লাখ ৮৬ হাজার। মার্কিন সশস্ত্র বাহিনীর ঘাঁটিতে বিমান রয়েছে ১ হাজার ৪৫১ টি।

চীন: গ্লোবাল ফায়ার পাওয়ার ডটকমের তালিকার তিনে রয়েছে আরেক পরাশক্তি চীন। ১৩৭ কোটি ৯৩ লাখ জনসংখ্যার দেশটিতে সশস্ত্র বাহিনীর সদস্য সংখ্যা ২৬ লাখ ৯৩ হাজার। প্রতিরক্ষা খাতে চীনের বাজেটের পরিমান ১৫ হাজার ১০০ কোটি ডলার।

ভারত: এশিয়ার শক্তিধর দেশ ভারত আছে তালিকার চারে। ১২৮ কোটি ১৯ লাখ জনসংখ্যার দেশটিতে সামরিক সদস্য সংখ্যা ৪২ লাখ ৭ হাজারেরও বেশি। তাদের সশস্ত্র বাহিনীর ঘাঁটিতে বিমান রয়েছে ৭২০ টি।

ফ্রান্স: গ্লোবাল ফায়ার পাওয়ার ডটকমের তালিকার পাঁচে থাকা ফ্রান্সের জনসংখ্যা ৬ জোটি ৭১ লাখ। তাদের সামরিক বাহিনীতে সদস্য সংখ্যা ৩ লাখ ৮৮ হাজার। ফ্রান্সের সামরিক ঘাঁটিতে এয়ারক্রাফট রয়েছে ১ হাজার ২৬২ টি।

যুক্তরাজ্য: ৬ কোটি ৪৭ লাখ জনসংখ্যার দেশ যুক্তরাজ্যে সামরিক সদস্য রয়েছে ২ লাখ ৭৯ হাজার। বিশ্বের ষষ্ঠ শক্তিশালী সশস্ত্র বাহিনীর দেশ যুক্তরাজ্যের প্রতিরক্ষা বাজেট ৫ হাজার কোটি ডলার।

দক্ষিণ কোরিয়া: গ্লোবাল ফায়ার পাওয়ার ডটকমের ২০১৮ সালের তালিকার সাতে আছে দক্ষিণ কোরিয়া। ৫ কোটি ১১ লাখ ৮১ হাজার জনসংখ্যার বিপরীতে তাদের সামরিক সদস্য ৫৮ লাখ ২৭ হাজার। তাদের ঘাঁটিতে এয়ারক্রাফট আছে ১ হাজার ৫৬০ টি।

জাপান: এশিয়ার শক্তিধর দেশ জাপানের প্রতিরক্ষা বাজেট ৪ হাজার ৪০০ কোটি মার্কিন ডলার। ১২ কোটি ৬৪ লাখ জনসংখ্যার বিপরীতে তাদের সেনা সদস্য রয়েছে ৩ লাখ ১০ হাজার।

তুরস্ক: শক্তিশালী সশস্ত্র বাহিনীর তালিকার নয়ে আছে তুরস্ক। দেশটির সামরিক ঘাঁটিতে ট্রাঙ্ক রয়েছে ২ হাজার ৪৪৬ টি। ৮ কোটি ৮ লাখ জনসংখ্যার দেশটিতে সামরিক বাহিনীর সদস্য সংখ্যা ৭ লাখ ১০ হাজার।

জার্মানি: ইউরোপের পরাশক্তি জার্মানির সশস্ত্র বাহিনীর সদস্য সংখ্যা ২ লাখ ৮ হাজার। দেশটির কমব্যাট ট্যাঙ্ক রয়েছে ৪৩২ টি। ৮ কোটি ৬ লাখ জনসংখ্যার দেশটিতে প্রতিরক্ষা খাতে বাজেটের পরিমান ৪ হাজার ৫২০ কোটি মার্কিন ডলার।

ব্রেকিংনিউজ

print

LEAVE A REPLY